বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

মৌলভীবাজারে যৌন হয়রানি, বাল্যবিবাহ সাইবার ক্রাইমের মতো অপরাধ বন্ধে শক্তিশালী নেটওয়ার্ক গঠন

image
Thu, May 25
02:58 2017

মোঃ অাব্দুল কালাম, মৌলভীবাজার:


ණ☛ ব্র্র্যাকের সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচি (সিইপি)’র মেয়েদের জন্য নিরাপদ নাগরিকত্ব (মেজনিন) প্রকল্পের উদ্যোগে যৌন হয়রানি নির্মূলকরণে জেলা পর্যায়ে নেটওয়ার্ক গঠন সভা অনুষ্ঠিত হয়। ২৪ মে বুধবার বিকালে মৌলভীবাজার জেলা শিল্পকলা একাডেমী মিলনায়তনে যৌন হয়রানি নির্মূলকরণে জেলা পর্যায়ে নেটওয়ার্ক গঠন সভায় উপস্থিত ছিলেন নারী নেত্রী মায়া ওয়াহিদ, জেলা শিশু বিষয়ক কর্মকর্তা মোঃ জসীম উদ্দিন, মৌলভীবাজার প্রেসক্লাবের সাধারণ এস এম উমেদ আলী, হাফিজা খাতুন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় প্রধান শিক্ষক রাশেদা বেগম, নারী নেত্রী ও সমাজসেবী নুরজাহান সুয়ারা, শাহ হেলাল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল মতিন প্রমূখ।সভায় বক্তব্য রাখেন ডাঃ এ কে জিল্লুল হক, শ্যামলী রানি চন্দ, মাধুরী মজুমদার, সাংবাদিক, নজরুল ইসলাম মুহিব, হোসাইন আহমেদ, সাদিকুল ইসলাম প্রমূখ।সভায় মুক্ত আলোচনা পর্ব সঞ্চালনা করেন মীর সামসুল আলম, সিনিয়র সেক্টর স্পেশালিস্ট, সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচি, প্রধান কার্যালয়, ব্র্যাক।


ණ☛মেজনিন কর্মসূচি সংক্রান্ত মূল উপস্থাপনা করেন প্রশান্ত কুমার দে,আঞ্চলিক ব্যবস্থাপক, সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচি, ব্র্যাক।স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন মো. আরিফুর রহমান, জেলা ব্র্যাক প্রতিনিধি, মৌলভীবাজার। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন, মোঃ আল আমিন, প্রোগ্রাম প্রোডিউসার, রেডিও পল্লীকন্ঠ, সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচি, ব্র্যাক।


ණ☛এছাড়া অনুষ্ঠানে শিক্ষক, সরকারি কর্মকর্তা, সুশীল সমাজ ও নাগরিক সমাজের প্রতিনিধিবৃন্দ, বিদ্যালয় ব্যবস্থাপনা কমিটির সদস্যবৃন্দ, নারী নেত্রী, এনজিও প্রতিনিধি, জনপ্রতিনিধি এবং ইলেকট্রনিক্স, প্রিন্ট ও অনলাইন মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দসহ প্রায় ৬০ জন উপস্থিত ছিলেন।


ණ☛এছাড়াও ব্র্যাকের পক্ষ থেকে উপস্থিত ছিলেন দেবাশীষ হালদার, সেক্টর স্পেশালিস্ট, সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচি, তারিক আজিজ, জেলা ব্যবস্থাপক, সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচি, মৌলভীবাজার, মো: মিজানুর রহমান, জে এস এস, মেজনিন প্রকল্প, সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচি, দেবদুলাল দেব, এফ ও সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচি, ব্র্যাক, মৌলভীবাজার। সভায় হাফিজা খাতুন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের স্টুডেন্ট ওয়াচ গ্রুপের দুইজন সদস্য সকল সদস্য কর্তৃক তৈরী “যৌন হয়রানি প্রবন এলাকা চিহ্নিতকরণ ম্যাপ বা হ্যারেস ম্যাপ” প্রদর্শন ও ব্যাখা করেন। স্কুল ক্যাচমেন্ট এলাকার একটি ম্যাপ তৈরী করে কোথায় কোথায় বা কোন পয়েন্টে মেয়েদের হয়রানি বা উত্ত্যক্ত করা হয় তা চিহ্নিত করে সকলের মাঝে ব্যাখা করা হয়। উল্লেখ্য নারী ও কিশোরীদের প্রতি সব রকম সহিংসতা, যৌন হয়রানি, সাইবাল বুলিং ও বাল্যবিয়ে নির্মূলকরণে ব্র্যাকের সিইপি কর্মসূচি ‘মেয়েদের জন্য নিরাপদ নাগরিকত্ব’ বা মেজনিন কর্মসূচির মাধ্যমে ছাত্রছাত্রীদের সচেতনতা ও আত্মবিশ্বাস বৃদ্ধি, শিক্ষক, অভিভাবক ও নাগরিক সমাজের সক্রিয় অবস্থান তৈরি এবং সরকারি-বেসরকারি সংস্থার অংশগ্রহণ নিশ্চিত করার মাধ্যমে যৌন হয়রানির বিরুদ্ধে সামাজিক আন্দোলন গড়ে তোলার লক্ষ্যে মৌলবীবাজার জেলার ৩০টি স্কুলসহ আরো ১০ জেলায় ৩০০ স্কুলে কাজ করছে।


ණ☛সবশেষে সভায় উপস্থিত সকলের সম্মতিক্রমে রাশেদা বেগমকে আহ্বায়ক ও সদস্য সচিব রেডিও পল্লী কন্ঠের সিনিয়র ষ্টেশন ম্যানেজার মেহেদী হাসান এবং নজরুল ইসলাম মুহিবকে যুগ্ম আহ্বায়ক করে ১১ সদস্য বিশিষ্ট একটি নির্বাহী পরিষদ গঠন করা হয়। উক্ত নির্বাহী পরিষদকে একটি সাধারণ পরিষদ গঠন করার জন্য সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।


ණ☛সেই সাথে মায়া ওয়াহেদ, এস এম উমেদ আলী, নুরজাহান সুয়ারা, ডাঃ এ কে জিল্লুল হক, মোঃ জসীম উদ্দিন এই পাঁচ জনকে উপদেষ্টা হিসেবে নাম ঘোষনা করা হয়। কমিটি গঠন শেষে গত ১৮ মে রাজনগর উপজেলার শাম্মী বেগমকে ধর্ষনের পর নৃশংসভাবে হত্যার বিচারের দাবীতে একটি মানববন্ধন করা হয়।

লেখাটি ৩৫২ বার পড়া হয়েছে
নিউজ অর্গান টোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


Share


Related Articles

Comments

ফেসবুক/টুইটার থেকে সরাসরি প্রকাশিত মন্তব্য পাঠকের নিজস্ব ও ব্যক্তিগত মতামতের প্রতিফলন, এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

মোট ভিসিটর সংখ্যা
৭৭৯৬৫৪৬৯

অনলাইন ভোট

image
মাদক বিরোধী অভিযানের নামে অব্যাহত ক্রসফায়ার সমর্থন করেন কি?

আপনার মতামত
হ্যাঁ
না
ভোট দিয়েছেন ১০৬ জন

আজকের উক্তি

নির্বাচনকালীন সরকার কিংবা সহায়ক সরকার বিষয়টি রাজনৈতিক, এ বিষয়ে আমার কোনো বক্তব্য নেই: প্রধান নির্বাচন কমিশনার কেএম নুরুল হুদা
Changer.com - Instant Exchanger