খেলাধুলা

৪৩ রানের লিড পেলো বাংলাদেশ

image
Mon, August 28
03:58 2017

নিউজ অর্গান টোয়েন্টিফোর.কম:

ණ☛ ঢাকা টেস্টে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম ইনিংসে ৪৩ রানের লিড পেলো বাংলাদেশ। বাংলাদেশের ২৬০ রানের জবাবে অস্ট্রেলিয়া নিজেদের প্রথম ইনিংসে অলআউট হয়েছে ২১৭ রানে। বংলাদেশের বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান ৫ ও মেহেদি হাসান মিরাজ ৩ উইকেট নিয়েছেন। ২৬০ রানের জবাব দিতে নেমে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ১৪৪ রানে ৮ উইকেট হারিয়ে ফেলে অস্ট্রেলিয়া।

ණ☛বড় লিডের স্বপ্ন দেখছিল তখন বাংলাদেশ। কিন্তু শেষের দিকের ব্যাটসম্যানরা দারুণ দৃঢ়তা দেখান। নবম উইকেটে প্যাট কামিন্স ও অ্যাশটন অ্যাগার ৪৯ রানের জুটি গড়েন। কামিন্স ৯০ বলে করেন ২৫ রান। এরপর অ্যাগার ও হ্যাজেলউড শেষ উইকেটে যোগ করেন ২৪ রান। হ্যাজেলউডকে ৫ রানে ফিরলে তাদের ইনিংস শেষ হয়। অন্যদিকে অ্যাগার ৪১ রানে অপরাজিত থাকেন।

ණ☛ ৩ উইকেটে ১৮ রান নিয়ে আজ দ্বিতীয় দিন শুরু করে অজিরা। দিনের শুরুতেই অস্ট্রেলিয়ার ইনিংসে আঘাত হানেন মেহেদি হাসান মিরাজ। ভয়ঙ্কর হয়ে ওঠার আগেই অজি অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথকে ব্যক্তিগত ৮ রানে বোল্ড করে ফেরান তিনি। দিনের তৃতীয় ওভারের শেষ বলে তিনি এই আউট করেন। কিন্তু এরপর বাংলাদেশকে অস্বস্তিতে ফেলেন পিটার হ্যান্ডসকম্ব ও ম্যাট রেনশ। তারা মাটি কামড়ে ধরে রখেন।

ණ☛কিন্তু তাদের মধ্যকার ৬৯ রানের জুটি ভাঙলেন স্পিনার তাইজুল ইসলাম। হ্যান্ডসকম্বকে ৩৩ রানে এলবিডাব্লিউ করে ফেরান তিনি। এরপর রেনশকে ব্যক্তিগত ৪৫ রানে ফেরান সাকিব আল হাসান। ৬ উইকেটে ১২৩ রান তুলে লাঞ্চে যায় অজিরা। লাঞ্চের পর এক রান যোগ করেই মেহেদি হাসানের বলে এলবিডাব্লিউ হয়ে ফেরেন ম্যাথিউ ওয়েড (৫)।

লেখাটি ২৩৪ বার পড়া হয়েছে
নিউজ অর্গান টোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


Share


Related Articles

Comments

ফেসবুক/টুইটার থেকে সরাসরি প্রকাশিত মন্তব্য পাঠকের নিজস্ব ও ব্যক্তিগত মতামতের প্রতিফলন, এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

মোট ভিসিটর সংখ্যা
৭১৬৭৬০২৯

অনলাইন ভোট

image
ধর্ষণ প্রবণতা বেড়ে যাওয়ায় আপনি কি মনে করেন ধর্ষণের শাস্তি মৃত্যুদণ্ড হওয়া উচিত?

আপনার মতামত
হ্যাঁ
না
ভোট দিয়েছেন ৬৭ জন

আজকের উক্তি

নির্বাচনকালীন সরকার কিংবা সহায়ক সরকার বিষয়টি রাজনৈতিক, এ বিষয়ে আমার কোনো বক্তব্য নেই: প্রধান নির্বাচন কমিশনার কেএম নুরুল হুদা