রাজনীতি

ডাঃ শিবলী খানের উচ্চতর ডিগ্রী লাভ ও এসিষ্টেন্ট প্রফেসর হিসাবে পদোন্নতি

image
Thu, December 21
01:51 2017

রফিকুল ইসলাম জুবায়ের:

ණ☛ বিশ্বনাথ তথা সিলেটের কৃতি সন্তান, বিশিষ্ট ডায়াবেটিস ও প্রিভেন্টিভ মেডিসিন বিশেষজ্ঞ ডাঃ মোহাম্মদ শিবলী খান সম্প্রতি ১ম শ্রেণীতে ১ম হয়ে "মাস্টার্স ইন পাবলিক হেলথ" ডিগ্রী অর্জন করে এডজাঙ্কট এসিষ্টেন্ট প্রফেসর হিসাবে সিলেটের প্রথম বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় লিডিং ইউনিভার্সিটির ডিপার্টমেন্ট অব পাবলিক হেলথ এ যোগদান করেছেন। ছেলেবেলা থেকে প্রখর মেধার অধিকারী বিশ্বনাথের এই কৃতিসন্তান ১৯৮১ সালে কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ড হতে ১ম বিভাগে SSC, ১৯৮৪ সালে ঐ একই শিক্ষা বোর্ড হতে ১ম বিভাগে HSC এবং ১৯৯২ সালে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় এর অধীনস্হ সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হতে MBBS ডিগ্রী অর্জন করেন। পরবর্তীতে তিনি ২০০৮ সালে ঢাকাস্থ বারডেম হাসপাতাল থেকে ডায়াবেটিস এর উপর কৃতিত্বের সাথে "সার্টিফিকেট কোর্স অন ডায়াবেটলোজী" লাভ করেন এবং সর্বশেষ ২০১৬ সালে ১ম শ্রেণীতে ১ম হয়ে " মাস্টার্স ইন পাবলিক হেলথ" অর্থাৎ MPH ডিগ্রী লাভ করলেন।

ණ☛ বিশ্বনাথের বিশিষ্ট এই চিকিৎসক চিকিৎসা সেবা ও শিক্ষকতা পেশার পাশাপাশি চিকিৎসা পেশার উপর বিভিন্ন গুরূত্বপূর্ণ গবেষণামূলক কাজের সাথে সম্পৃক্ত রয়েছেন।সম্প্রতি ডায়াবেটিস ও স্ট্রোক এর উপর ডাঃ খানের একটি গবেষণা আন্তর্জাতিক একটি জার্নাল এ প্রকাশিত হয়েছে। তাঁর গবেষণার বিষয় ছিল "RISK FACTORS AND PATTERNS OF STROKE AMONG DIABETIC AND NON DIABETIC PATIENTS" । ডাঃ খানের এই কষ্টার্জিত গবেষণাটি এখন GOOGLE এর মাধ্যমে সার্চ করে বিশ্বের কোটি কোটি মানুষ উপকৃত হওয়ায় তাঁর সাথে আমরা বিশ্বনাথবাসীও গর্বিত। ডাঃ খানের নাম লিখে অর্থাৎ "Dr Shibli Khan et al risk factors" এই লাইনটি GOOGLE এ লিখে সার্চ দিলে বিশ্বের যেকোনো প্রান্ত থেকে যে কেউ এই গবেষণাটি দেখতে পাবেন।

ණ☛ বিশ্বনাথের এই খ্যাতিমান চিকিৎসকের জন্ম বিশ্বনাথের একটি আলোকিত পরিবারে। মরহুম মাহমুদ আলী খান ও মরহুমা ময়মুনা খাতুন দম্পতির ১ম পুত্র ডাঃ মোহাম্মদ শিবলী খান ১৯৬৬ সালের ৩০ জুলাই বিশ্বনাথ উপজেলার দশঘর ইউনিয়নের অন্তর্গত নাচুনী গ্রামের এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন । তাঁর দাদা মরহুম মোহাম্মদ মুসা খান তৎকালীন হাউলীসুনাইত্যা ও ভাজুবনবাগ পরগণার জমিদার ছিলেন এবং তাঁর নানা মরহুম মাওলানা ইব্রাহিম আলী ছিলেন ব্রিটিশ আমলে পাঁচটি ভাষায় পান্ডিত্যের অধিকারী একজন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ যিনি সিলেট সরকারী পাইলট হাই স্কুল,সুনামগন্জ সরকারী হাই স্কুল, দি এইডেড হাই স্কুল ও রাজা জি সি হাইস্কুল এ শিক্ষকতা করার পর সর্বশেষ সিলেট উইমেন্স কলেজের ক্লাসিক্যাল ল্যাংগুয়েজ এর প্রফেসর হিসাবে অবসর গ্রহণ করেন। স্ত্রী শাহানা চৌধুরী ও দুই পুত্র সন্তান নিয়ে ডাঃ খানের রয়েছে একটি সুখের সংসার। তাঁর ১ম পুত্র নাভিদ মাহমুদ খান বর্তমানে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজের ৩য় বর্ষের একজন কৃতি ছাত্র এবং কনিষ্ঠ পুত্র সাইরাজ মাহমুদ খান নার্সারি-১ এ অধ্যয়নরত।

লেখাটি ৩৭৫ বার পড়া হয়েছে
নিউজ অর্গান টোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


Share


Related Articles

Comments

ফেসবুক/টুইটার থেকে সরাসরি প্রকাশিত মন্তব্য পাঠকের নিজস্ব ও ব্যক্তিগত মতামতের প্রতিফলন, এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

মোট ভিসিটর সংখ্যা
৭৮৬৫২৮৭৯

অনলাইন ভোট

image
মাদক বিরোধী অভিযানের নামে অব্যাহত ক্রসফায়ার সমর্থন করেন কি?

আপনার মতামত
হ্যাঁ
না
ভোট দিয়েছেন ১১২ জন

আজকের উক্তি

নির্বাচনকালীন সরকার কিংবা সহায়ক সরকার বিষয়টি রাজনৈতিক, এ বিষয়ে আমার কোনো বক্তব্য নেই: প্রধান নির্বাচন কমিশনার কেএম নুরুল হুদা
Changer.com - Instant Exchanger