রাজনীতি

'খাদ্দামা'

image
Wed, June 13
03:33 2018

'আবু তাহের'

গরীবের মাইয়া,বিদেশ যাইব,টেকা কামাইবার দায়।
বাপ রাজী হইল কোনমতে,বাধ সাধিল মায়।

স্বামী তার রেগে আগুন, তালাক দিব কয়।
শাশুড়ি কয় এমন মাইয়ার জন্ম শুদ্ধ নয়।

সব মুখ বুজিয়া ডিসিশন নিল,যে যাই বলুক,
বিদেশ যাইব তায়।
উপদেশ দিবার অনেক আছে,পেটের দায় নিব নায়।

হাতের চুড়ি, কানের দুল, নাকফুল বেচিয়া দিল।
পাসপোর্ট বানাইবার টেকা কোনমতে হইল।
মেডিকাল,ভিসা,টিকেট দালাল দিব।
খাদ্দামা হইবার দায়।

সব বন্দোবস্ত করিয়া উড়াল দিল,
ছয় ঘন্টা পর নবীর দেশে পোছিল।

এয়ারপোর্টে নয় ঘন্টা অপেক্ষার পর,
জোব্বা গায়ে কপিল আসিয়া আহলান বলিল।

এরপর গাড়িতে চরিয়া তিন ঘন্টা পর বাসায় পোছিল।
পাসপোর্ট রাইখা, রুমে থুইয়া, বাহির দিয়া লক করিয়া দিল।

এদিকে মাইয়ার ক্ষিদায় পেট চোঁ চোঁ করে,
ডোর নক করিয়া সাড়া না পাইয়া ঘুমাইয়া পড়ে।

সকালবেলা মেডাম আসিয়া খাওনদাওন দেয়,
কাজকাম বুঝাইয়া দেওনের দায়,কিচেনে নেয়।

এরপর থাইকা সকাল থেকে সন্ধ্যা অব্ধি মাইয়া কামকাইজ করে,
রাত্রে খাইয়াদাইয়া ঘুমাইয়া পড়ে।

এইভাবে চলতেছিল ভালই, বাধ সাধিল মালিকের পোলায়।
মালিক সফরে থাকে,মালিকের যুবক পোলায় আইসা অশ্লীল ইঙ্গিত করে।

একদিন মালিকের বউ ঘুমাইয়া পড়িলে,
পোলায় আইসা জাপ্টা দিয়া ধরে,
ও মা গো কইরা মাইয়া চিক্কুইর দিয়া উঠে,
পোলায় উইঠা দোড়াইয়া পলায়।

এই ঘটনার পর মাইয়া এম্বাসির সহায়তায় দেশে ফিইরা যায়,
কিন্তু সে কি আর স্বাভাবিক জীবন ফিরা পায়?

স্বামী আরেকটা বিয়া করছে,শাশুড়ি কয় তোরে তালাক দিছে।
বাপ মায় মানি লয় কোনমতে,সমাজ কয় তুই নস্টা মাইয়া।

লেখাটি ২৯৫ বার পড়া হয়েছে
নিউজ অর্গান টোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


Share


Related Articles

Comments

ফেসবুক/টুইটার থেকে সরাসরি প্রকাশিত মন্তব্য পাঠকের নিজস্ব ও ব্যক্তিগত মতামতের প্রতিফলন, এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

মোট ভিসিটর সংখ্যা
৭৮৬৮০২৬৪

অনলাইন ভোট

image
মাদক বিরোধী অভিযানের নামে অব্যাহত ক্রসফায়ার সমর্থন করেন কি?

আপনার মতামত
হ্যাঁ
না
ভোট দিয়েছেন ১১২ জন

আজকের উক্তি

নির্বাচনকালীন সরকার কিংবা সহায়ক সরকার বিষয়টি রাজনৈতিক, এ বিষয়ে আমার কোনো বক্তব্য নেই: প্রধান নির্বাচন কমিশনার কেএম নুরুল হুদা
Changer.com - Instant Exchanger