ইরাকে অভ্যন্তরে তুরস্কের বিমান হামলা

ইরাকে বিমান হামলা চালিয়েছে তুরস্ক। দেশটির এমন আগ্রাসী আচরণের তীব্র নিন্দা জানিয়েছে ইরাক। বাগদাদ বলেছে, তুরস্ক যেভাবে অন্য দেশের অভ্যন্তরে ঢুকে বিমান হামলা চালিয়েছে তাকে তারা সার্বভৌমত্বের চরম লঙ্ঘন হিসেবে মনে করছে। এর আগে তুরস্কের ১৮টি বিমান ইরাকের স্বায়ত্তশাসিত কুর্দিস্তান অঞ্চলের একটি শরনার্থী শিবিরকে টার্গেট করে হামলা চালায়।

এ খবর নিশ্চিত করে বিবৃতি দিয়েছে ইরাকের জয়েন্ট অপেরেশনস কমান্ডের মিডিয়া অফিস। তুর্কি বিমান ইরাকের সিনজার, মাখমুর, আল-কুয়াইর ও এবরিল এলাকায়ও হামলা চালায়। বেশ কয়েকটি বিমান ইরাকের মধ্যে বেশ কিছু প্রদেশের ব্যাপক অভ্যন্তরে ঢুকে যায়। মাখমুর ও সিনজারের কাছে অবস্থিত একটি শরণার্থী ক্যাম্পে হামলা চালায় এসব বিমান।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, তুরস্কের এসব বিমান অনেকক্ষণ ইরাকের আকাশে অবস্থান করে।

তুরস্কের এই আগ্রাসী কর্মকাণ্ডকে ইরাক উস্কানিমূলক বলে তার কঠোর নিন্দা জানিয়েছে। বাগদাদ বলেছে, এটি কোনোভাবেই সৎ প্রতিবেশীসুলভ আচরণ হতে পারে না। এটি ইরাকের সার্বভৌমত্বের চরম লঙ্ঘন। ইরাক ওই বিবৃতিতে কড়া ভাষায় বলেছে, ভবিষ্যতে যাতে কখনো এমন ঘটনার পুনরাবৃত্তি না ঘটে। দু’দেশের সীমান্তে নিরাপত্তা রক্ষা করতেও সক্ষম বাগদাদ।

Add your comment:

Related posts